প্রাথমিক শিক্ষকরা নতুন সুখবর পেতে যাচ্ছে

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রশ্নপত্র প্রণয়নে শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। গত সপ্তাহে অনুষ্ঠিত মাসিক সমন্বয় সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বার্ষিক পরীক্ষার প্রশ্নপত্র এতদিন শিশু কল্যাণ ট্রাস্টের মাধ্যমে প্রণয়ন করা হয়েছে। প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এবার দায়িত্বটি শিক্ষকদের কাছেই সমর্পণ করতে চাচ্ছে।

মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, প্রশ্নপত্র প্রণয়ন পদ্ধতির ওপর শিক্ষকদের বিশেষ প্রশিক্ষণ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে শিক্ষকদেরকে বিষয়ভিত্তিক শিক্ষাদানে চৌকস করে তুলতে প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে।

নাম গোপন রাখার শর্তে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা বলেন, শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ দেওয়া কাজটি তদারকি করবে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর। ২০২০ সালের প্রথম ভাগে প্রশিক্ষণ শুরু হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

তিনি জানান, সরকারি প্রাথমিক শিক্ষকদের সঙ্গে শিশু কল্যাণ ট্রাস্টের শিক্ষকদেরও এই প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। পঞ্চম শ্রেণির সমাপনী পরীক্ষা নিজেদের মতো করে আয়োজন করতে ও স্বতঃস্ফূর্তভাবে প্রশ্নপত্র প্রণয়নে তাদেরকে সক্ষম করে তোলা হবে।

এ বিষয়ে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব আকরাম আল হোসেন বলেন, এমন একটি পরিকল্পনা আমাদের আগেই ছিল। পুরো প্রাথমিক শিক্ষা ব্যবস্থাকে আমরা যুগোপযোগী করে তুলতে চাই। প্রাথমিক পর্যায়ে মানসম্পন্ন ও অভিজ্ঞ শিক্ষক তৈরি করতে আমরা বিভিন্ন বিষয়ে প্রশিক্ষণ দেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছি।

এদিকে সমন্বয় সভায় প্রাথমিকের ‘ওয়ান ডে ওয়ান ওয়ার্ড’ কর্মসূচি বাস্তবায়নের অগ্রগতি জানতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে বলেও জানিয়েছে সূত্র। এই কর্মসূচি বাস্তবায়নের মাধ্যমে দুর্বল শিক্ষার্থী বাছাই করে তাদের শিক্ষাদানে অধিকতর যত্ন নিতে বলা হয়েছে।