ফেইক ওয়েবসাইট নিয়ে জরুরি নির্দেশনা ডিপিইর

বুধবার (৩ ফেব্রুয়ারি) প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের এক আদেশে ভুয়া ওয়েবসাইট খোলায় ডিপিই সতর্ক  ও থানায় জিডি করেন এবং  এই চক্রের প্রতারণা থেকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানানো হয় জারিকৃত আদেশে। সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণ করার জন্য ভুয়া ওয়েবসাইট খুলে তথ্য আহ্বান করেছে একটি প্রতারক চক্র। এই ওয়েবসাইটে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের ছবিও ব্যবহার করা হয়েছে।

নকল এই ওয়েবসাইটের বিরুদ্ধে ঢাকা মহানগরীর মিরপুর মডেল থানায় গত মঙ্গলবার (২ ফেব্রুয়ারি) সাধারণ ডায়েরিও করা হয়েছে। যার নম্বর ১৪৫। তবে এ বিষয়ে কিছুই জানেন না বলে  মিরপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাজিরুর রহমান।

তিনি বলেন, এমন কোনো অভিযোগ সম্পর্কে আমার কিছুই জানা নেই। এ কারণে আমি কিছু বলতে পারছি না। পরে তাকে জিডি নম্বর বলা হলেও এ সম্পর্কে কিছু জানাতে পারেননি তিনি।

ডিপিইর জারি করা ওই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, একটি অসাধু চক্র প্রধানমন্ত্রী এবং প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের ছবি ব্যবহার করে বিপিপ্রাইমারিস্কুল’ নামে একটি নকল ওয়েবসাইট খুলে বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারিকরণের জন্য তথ্য আহ্বান করেছে।

এই ওয়েবসাইটের সঙ্গে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের কোনও সম্পর্ক নেই। এই নকল ওয়েবসাইটের বিরুদ্ধে ঢাকা মহানগরীর মিরপুর মডেল থানায় গত মঙ্গলবার (২ ফেব্রুয়ারি) সাধারণ ডায়েরি করা হয়েছে, যার নম্বর ১৪৫।

এছাড়া এই নকল ওয়েবসাইটের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ করা হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে আরো বলা হয়, প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা অনুযায়ী, ২০১৩ সালে ২৬ হাজার ১৯৩টি বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণ করা হয়েছে। সর্বজনীন ও মানসম্মত প্রাথমিক শিক্ষা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে কোনও এলাকায় প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রয়োজন হলে, সরকার নিজ উদ্যোগে প্রাথমিক বিদ্যালয় স্থাপনসহ শিক্ষক নিয়োগ করবে। বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণের আর কোনও প্রস্তাব বিবেচনার সুযোগ নেই।

বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, কোনও কোনও স্বার্থান্বেষী মহল বিদ্যালয় জাতীয়করণ করা হবে- এই মর্মে প্রচারণা চালিয়ে জনমনে বিভ্রান্তি সৃষ্টি করছে এবং অর্থ সংগ্রহ করছে, যা সম্পূর্ণ অবৈধ এবং অনভিপ্রেত। এ ধরনের ওয়েবসাইট ফেইক সাইড খোলা তারই বহিঃপ্রকাশ। এ ধরনের বিভ্রান্তিকর প্রচারণায় প্ররোচিত না হওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে সতর্ক করা হলো।